স্যার আমি মেথর, মেয়েটার ৫ দিন ধরে জ্বর, টাকার জন্য চিকিৎসা করতে পারি না

Dr. Dinesh Devnath, President REO, Comilla

স্যার আমি মেথর, মেয়েটার ৫ দিন ধরে জ্বর, টাকার জন্য চিকিৎসা করতে পারি না, স্বামী অসুস্থ —-সীমা কটক।

আজ সকালে চেম্বারে  ঢুকতেই দেখি একজন অসহায় মা তার ছোট একটি বাচ্চা মেয়েকে নিয়ে বসে আছে, রোগি বসার স্থানে। চেম্বারে বসার পরই আমার সহকারীকে বলি, সিরিয়াল মত রোগি ডাক। সহকারী খুব বিনয়ের সাথে বলল, স্যার সকাল থেকেই একজন মহিলা বাচ্চা নিয়ে বসে আছে, মনে হয় বাচ্চা টার খুব জ্বর, সিরিয়াল নেয় নাই। তাকে কি চেম্বারে ডাকব? 


আমি বললাম যেহেতু সে আগে এসেছে তাকে আগে ডাক। মা মেয়ে চেম্বারে ঢুকেই কাপা কাপা গলায় মহিলাটি বলল, ‘ স্যার আমি সিরিয়াল কাটি নাই, টাকা নেই।’ তাকে বসতে বললাম, বসতে চায় না আমার সামনে। ধমকের পর বসল, কি হয়েছে বলার পর বলল, ‘ স্যার আমি মেথর, মেয়েটার ৫দিন ধনে জ্বর, বাজার থেকে সিরাপ এনে দিয়েছি, কোন কাজ করে না। ডা. এর নিকট চিকিৎসা করার মত আমাদের সাধ্যি নেই। অনেকের কাছে শুনে আপনার কাছে আসলাম, যদি আপনার দয়া হয়, আমার মেয়েটাকে চিকিৎসা করে দেন স্যার।


কোথায় থেকে এসেছেন বলার পর বলল, ‘ চাদপুরের মতলব (উ:), বেলতলী থেকে, নাম সীমা কটক, স্বামী হিরো কটক, প্যারালাইজড। এক ছেলে, দুই মেয়ে নিয়ে খুব অসহায় অবস্থায় আছি স্যার।’ কটক কি জিজ্ঞাসা করা মাত্রই হিন্দি, উর্দূ বলা শুরু করল। কিছুক্ষণ পর বলল স্যার আমি বিহারী, গরিব বলে সমাজে আমাদের দাম নাই, মেয়েটার ৫দিন জ্বর হলেও ঔষধ কেনার জন্য কারো কাছে ধার চেয়েও টাকা পাইনে। তাই দু’দিন ভিক্ষুা করে ২২০টাকা যোগার করে মেয়েকে নিয়ে এসেছি, ভাড়ায় চলে গেছে ৩৫টাকা। 


যা হোক বাহিরে অনেক রোগি থাকা সত্ত্বেও উনার কথা মনযোগ সহকারে শুনলাম। অবশেষে ফ্রি ব্যবস্থাপত্র দিয়ে, ঔষধ কেনার জন্য সাধ্যমত সহযোগীতা করলাম। তাই সমাজের সবাইকে অনুরোধ করছি আসুন যার যার অবস্থান থেকে গরিব, দু:খি ও অসহায় মানুষকে সাধ্যমত সহযোগীতা করি।
” সবার উপর মানুষ সত্য, তাহার উপর নাই।” 

Buy Book of the week by Clicking on it NOW!.

Written By

Disclaimer: The facts and opinions expressed within this article are the personal opinions of the author. www.HinduAbhiyan.com does not assume any responsibility or liability for the accuracy, completeness, suitability, or validity of any information in this article.

loading...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *